মঙ্গলবার, ২৬ জানুয়ারী ২০২১, ০৩:০৯ অপরাহ্ন

চিলমারীতে প্রেমিকার রক্তনালী কেটে দিলো প্রেমিকের মা

স্টাফ রিপোর্টারঃ
  • প্রকাশের সময়ঃ বৃহস্পতিবার, ৩১ ডিসেম্বর, ২০২০

প্রেমিকের মায়ের সাথে দেখা করতে গিতে মারাত্মক জখম হয়ে ফিরেছে কলেজ পড়ুয়া এক প্রেমিকা। ওই যুবতীর বামহাতের টেন্ডন ও রক্তনালী কাটা অবস্থায় চিলমারী হাসপাতালে নেয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরন করেন।

বৃহস্পতিবার দুপুরে কুড়িগ্রামের চিলমারী উপজেলার জুম্মাপাড়া এলাকায় ঘটনাটি ঘটেছে।

জানাগেছে, দীর্ঘদিন ধরে উপজেলার মাচাবান্দা এলাকার আনিছুর রহমানের মেয়ে আশুরা আক্তার প্রিয়া (১৯)’র সাথে জুম্মাপাড়া (কাউয়াপাড়া) এলাকার আমিনুল ইসলামের পুত্র আল মাহমুদ মানিক (২৩) এর প্রেমের সম্পর্ক চলছিলো।

বৃহস্পতিবার দুপুরে প্রিয়া মানিকের মায়ের সাথে দেখা করতে যায়। সেখান থেকে জনৈক রিক্সা চালক সঙ্গাহীন অবস্থায় প্রিয়াকে হাসপাতালের জরুরী বিভাগে ভর্তি করায়। কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরন করেন।

আশুরা আক্তার প্রিয়া জানায়, আল মাহমুদ মানিকের সাথে ১বছর ৫মাস ধরে তার প্রেমের সম্পর্ক চলছিলো। বর্তমানে মানিক তাকে এড়িয়ে চলার চেষ্টা করায় সে মানিকের মায়ের সাথে দেখা করতে যায়। বাড়ীতে পৌঁছার আগেই বাড়ীর পাশ্বের চাতালে মানিকের মা তাকে বাঁধা দেয় এবং গাল-মন্দ করতে থাকে। এক পর্যায়ে মানিকের মা প্রিয়ার হাত কেটে দিলে সে অজ্ঞান হয়ে পড়ে বলে জানায়।

প্রেমিক আল মাহমুদ মানিকের সাথে মুঠোফোনে যোগাযোগ করা হলে তার ফোন বন্ধ পাওয়া যায়।

কর্তব্যরত চিকিৎসক ডা. ফাতেমাতুজ জোহরা জানান, প্রিয়ার বাম হাতের টেন্ডন ও রক্তনালী দুটোই কেটে গেছে। টেন্ডন মেরামতসহ উন্নত চিকিৎসার জন্য তাকে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরন করা হয়েছে।
Attachments area

সংবাদটি শেয়ার করুন

এ বিভাগের আরো সংবাদ
এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।
কারিগরি সহযোগিতায়: আরএসকে হোস্ট
01779911004